সিদ্ধিরগঞ্জে উপস্থিত হতে পারেনি স্বামী তার স্ত্রী’র, ছেলে তার মায়ের জানাযায়

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

স্বাধীন বাংলাদেশ রিপোর্ট:
হেফাজতের মামলায় পলাতক আসামী হওয়ায় স্ত্রী’র মৃত্যুতে জানাযায় উপস্থিত হতে পারেননি নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন ও তার ছেলে কাউন্সিলর সাদরিল। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জানাযায় উপস্থিত বিএনপি’র নেতাকর্মীরা। গতকাল সন্ধ্যায় মহানগর শ্রমিকদলের আহবায়ক এসএম আসলামের সাথে মোবাইলে কথা হলে তিনি জানান, হেফাজত মামলার আসামী হওয়ায় সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন ও তার সন্তান ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাদরিল জানাযায় উপস্থিত হতে পারেনি। তবে তার বড় ছেলেসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন। এ নিয়ে পরিবারের মধ্যে চরম শোক রিবাজ করছে। এদিকে যদিও স্বামী সন্তান জানাযায় উপস্থিত হতে পারেনি। তবে শোক সন্তপ্ত পরিবারের পাশে গিয়ে সহানুভুতি প্রকাশ করেছেন নাসিকের সুযোগ্য মেয়র ডা: সেলিনা হায়াৎ আইভী।
নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মুহাম্মদ গিয়াসউদ্দিনের স্ত্রী তৌফিজা বেগম গত বুধবার করোনায় আক্রান্ত হয়ে ইন্তেকাল করেন। বুধবার সকালে রাজধানীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সকাল ১০ টায় তিনি মৃত্যু বরন করেন (ইন্ন………….রাজিউন)। বৃহস্পতিবার বিকেলে সিদ্ধিরগঞ্জের সাইলো এলাকায় বাদ আছর নামাজে জানাজা শেষে সিদ্ধিরগঞ্জ সাইলো রোড কবরস্থানে মরহুমার দাফন সম্পন্ন করা হয়। এসময় রাজনৈতিক অসংখ্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত থাকলেও উপস্থিত ছিলেন স্বামী মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন ও তার ছেলে কাউন্সিলর সাদরিল । এদিকে বিএনপির সাবেক এই সংসদের স্ত্রীর মৃত্যুতে সমবেদনা জানাতে বুধবার বিকেলে সিদ্ধিরগঞ্জ বাজারস্থ মুক্তিযোদ্ধা নিবাসে আসেন নাসিক মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী। এসময় মেয়র তার পরিবারের সকলের খোঁজ খবর নেন এবং সমবেদনা জানান। মেয়র আইভীর সাথে আরো উপস্থিত ছিলেন, প্যানেল মেয়র আফসানা আফরোজ বিভা, নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি কামরুল হুদা বাবু প্রমূখ। উল্লেখ্য, সিদ্ধিরগঞ্জে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে হেফাজতের হরতাল চলাকালে নাশকতার ঘটনায় সিদ্ধিরগঞ্জ থনায় পৃথক ৮টি মামলা রুজু হয়েছে। গত মঙ্গলবার (৩০ মার্চ) দুপুরে মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিদ্ধিরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মশিউর রহমান পিপিএম বার। মামলায় বিএনপি দলীয় সাবেক সাংসদ গিয়াস উদ্দিন ও তার ছেলে কাউন্সিলর সাদরিল সহ অসংখ্য নেতাকর্মীকে আসামী করা হয়। এ সকল মামলায় গিয়াস উদ্দিন ও তার ছেলে সাদরিল পলাতক রয়েছেন। আর এ কারনেই স্ত্রীর মৃত্যুতে জানাযায় উপস্থিত হতে পারেননি গিয়াস উদ্দিন ও তার ছেলে সাদরিল।


সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *