মহল্লায় মহল্লায় পানির হাহাকারে সিদ্ধান্তের পরিবর্তন আনা হয়েছে নাসিকের পানি সরবরাহের সময় বেড়ে ১৬ ঘন্টা

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

স্বাধীন বাংলাদেশ রিপোর্ট:
মাঠপর্যায়ে পরিদর্শন ও বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ অনুযায়ী নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীর নির্দেশে পানি সরবরাহে নাসিকের সিদ্ধান্তের পরিবর্তন আনা হয়েছে। এখন থেকে সময় বাড়িয়ে দুই বেলায় ৮ ঘন্টা করে ১৬ ঘন্টা পানি সরবরাহ করা হবে।
গত শনিবার (৫ জুন) সকালে লাইভ নারায়ণগঞ্জকে তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আজগর হোসেন।
তিনি বলেন, রাত ২টা থেকে সকাল ১০টা পর্যন্ত পানি সরবরাহ করা হবে৷ আবার দুপুর ২টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত চলবে পানির পাম্প৷ এতে বিদ্যুতেরও ২৫ শতাংশ সাশ্রয় হবে৷ আমাদের বছরের প্রায় ৭৫ লাখ টাকা ভর্তিুকী গুনতে হয়। এই ১৬ ঘন্টায় পানি সরবরাহ করা হলে আমাদের বিদ্যুৎ সাশ্রয় করতে পারবো। তাছাড়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে নিয়মিত অভিযান চালিয়ে অবৈধ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করলে রাজস্ব আদায়ও বাড়বে৷
তথ্যমত, গত ২৪ মে সিটি করপোরেশন এক জরুরী বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে নগরবাসীকে জানায়, ১ জুন ভোর ৫টা থেকে সকাল ৯টা পর্যন্ত এবং বিকাল ৫টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত দুই দফায় ৮ ঘন্টা পানি সরবরাহ করা হবে। এই সময়ের মধ্যে প্রয়োজনীয় পরিমান পানি সংগ্রহ ও সংরক্ষণ করে ব্যবহার করার জন্য অনুরোধ করেন। নির্দেশনা মতে ১ জুন ভোর থেকে নতুন নিয়মে পানি সরবরাহ শুরু হয়। কিন্তু ওইদিন বিকাল থেকেই নাসিকের বিভিন্ন এলাকায় পানি সংকট দেখা দেয়। যাদের ডিপ টিউবওয়েল আছে তারা পানি সংকটে পড়ছেন না। যারা নাসিকের সরবরাহকৃত পানি ব্যবহার করেন তারা ভোগান্তিতে পড়েন। পরবর্তীতে পানি সরবরাহের পাম্প চালানোর সময় আরও চার ঘন্টা বৃদ্ধি করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৩ জুন) সকাল থেকে ৬ ঘন্টা করে দুই বেলায় মোট ১২ ঘন্টা পাম্প চালু রাখবে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের পানি সরবরাহ বিভাগ (সাবেক ঢাকা ওয়াসা)। কিন্তু তাতেও কাংখিত পানি পাচ্ছে না নগরবাসী। সূত্র আরও জানায়, নানান কারণে নারায়ণগঞ্জে ২৪ ঘন্টা পানি সরবরাহ করা হতো। পানি সরবরাহের সিস্টেমটি নিয়ন্ত্রিত ছিল না। এতে বিপুল পরিমাণ বিদ্যুৎ অপচয় হতো। কিন্তু নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের কাছে পানি সরবরাহের দায়িত্ব আসার পর সিটি করপোরেশন সবধরনের কার্যক্রম গুছিয়ে আনার চেষ্টা করছে। সে অনুযায়ী সিটি কর্পোরেশন দুই বেলা পানি সরবরাহের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কিন্তু এই সিস্টেম শুরুতেই মুখ থুবড়ে পড়েছে নগরের বিভিন্ন এলাকায়। বিষয়টি নাসিক মেয়রকে আরও গভীরভাবে পর্যালোচনা করে দেখার অনুরোধ জানিয়েছিলেন ভুক্তভোগিরা। অবশেষে সকলের চিন্তা করে আবারো সময় বাড়ালো নাসিক।


সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *