সোনারগাঁওয়ে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় একজন আহত

সংবাদটি শেয়ার করুন:

স্টাফ রিপোর্টার:
নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় একজন গুরুতর আহত হয়েছে। আহত ব্যাক্তির নাম আক্তার হোসেন (৪২) উপজেলার মোগরাপাড়া ইউনিয়নের ছোট সাদিপুর গ্রামের বাসিন্দা। আশংকাজনক অবস্থায় আহত আক্তার হোসেনকে সোনারগাঁও উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। প্রতিপক্ষের লোকজন রডদিয়ে তার সামনের পাটির উপরের মারির দুটো দাঁত ভেঙ্গে দেয় এবং তাকে পিটিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে নিলাফুলা জখম করে। এই ঘটনায় আক্তার হোসেনের চাচাত ভাই মোঃ নাজমুল হাসান বাবু বাদী হয়ে সোনারগাঁও থানায় ৬ জনকে আসামি করে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ থেকে জানা যায়, বুধবার (২৮ এপ্রিল) সকালে উপজেলার মোগরাপাড়া ইউনিয়নের ছোট সাদিপুর এলাকায় জমি-জমা সংক্রান্ত বিষয়ে স্থানীয় চেয়ারম্যান ও এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে শালিশী বৈঠক চলাকালীন সময়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে মোতালেব মিয়ার ছেলে মোঃ সুলতান (৪৮), মোঃ তাওলাদ হোসেনে (৪৬), তাওলাদের ছেলে মোঃ জাহিদ (৪৩) ,মোঃ রিদম (২২) মোঃ জাহিদের ছেলে জিসান (১৮), মোঃ তাওলাদ হোসেনের স্ত্রী মোসাঃ রুমা (৪০) সহ অজ্ঞাত আরো দশ বারো জন ব্যাক্তি দেশীয় অস্ত্রে সুসজ্জিত হয়ে আক্তার হোসেনের উপরে অতর্কিত হামলা চালায়। তাকে মাটিতে ফেলে লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। আক্তার হোসেনের ডাক চিৎকারে আসপাশের লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভর্তি করে। এ ঘটনার সময় বিবাদীরা, মোঃ নাজমুল হাসান বাবুর সাথে থাকা ১৫,০০০ টাকা জোরপূর্বক নিয়ে যায়। এবং পরবর্তীতে সুযোগমত পাইলে প্রাণে শেষ করিয়া দিবে মর্মে হুমকি প্রদান করে। এ ব্যাপারে সোনারগাঁ থানার ওসি হাফিজুর রহমান বলেন, জমি-জমা নিয়ে পূর্ব সত্রুতার জের দরে মারামারির ঘটনায় লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।


সংবাদটি শেয়ার করুন:

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *